ঢাকারবিবার , ১৬ জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  1. অপরাধ
  2. আন্তর্জাতিক
  3. আবহাওয়া
  4. কর্পোরেট বুলেটিন
  5. কৃষি সংবাদ
  6. খেলাধুলা
  7. গণমাধ্যম
  8. চাকরি
  9. জাতীয়
  10. জেলা সংবাদ
  11. ঢাকা বিভাগ
  12. ধর্ম ও জীবন
  13. নাগরিক সংবাদ
  14. পদ্মাসেতু
  15. পাঁচমিশালি
আজকের সর্বশেষ সব খবর

গলাচিপার নিখোঁজ কিশোর মুন্না নারায়ণগঞ্জ থেকে উদ্ধার

গলাচিপা (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি
অক্টোবর ২১, ২০২২ ১০:৫০ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

পটুয়াখালীর গলাচিপা উপজেলার দীর্ঘ পাঁচ মাস ধরে নিখোঁজ কিশোর মুন্না হাওলাদার (১৭) কে নারায়ণগঞ্জের চাষারা থেকে উদ্ধার করা হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার ২০ অক্টোবর ওই কিশোর কে উদ্ধার করে গলাচিপা থানা পুলিশ।

পুলিশ জানায়, গলাচিপা সদর ইউনিয়নের বোয়ালিয়া গ্রামের ০৯নং ওয়ার্ডের শাহজাহান মিয়ার ছেলে মোঃ মুন্না হাওলাদার (১৭)। গত ১০ মে ২০২২ কাজী হযরত আলী সহ ৫ জন চুরির অপবাদ দিয়ে লোহার শিকলে বেঁধে ওই কিশোর কে নির্যাতন করে। পরে ভিকটিম মুন্না কৌশলে শিকল খুলে পালাইয়া যায়। ঘটনার পর ওইদিন থেকেই ভিকটিম নিখোঁজ ছিল।

এ ঘটনায় কিশোরের মা হাসিনা বেগম বাদী হয়ে গলাচিপা থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। মামলার সূত্র ধরে এজাহারনামীয় কিশোরের মামী মমতাজ (৪৫), মামাতো বোন তানিয়া (৩০) এবং প্রতিবেশি শামীম (৪০) নামে অভিযুক্ত ৩ জনকে পুলিশ গ্রেফতার করে আদালতে সোপর্দ করে। তারা এখন আদালত থেকে জামিনে রয়েছেন। এসব ঘটনার পরে গতকাল ২০ অক্টোবর ২০২২ দীর্ঘ ৫ মাস পরে মুন্না কে গলাচিপা থানা পুলিশ কৌশলে নারায়ণগঞ্জের চাষারা হইতে উদ্ধার করেছে।

উদ্ধার এর পরে মুন্না পুলিশকে জানায়, গত ৯ মে আত্মীয় সম্পর্কের লোকজন টাকা চুরির অভিযোগে কয়েকদফা মারধর করেছিলেন। পরে শিকল থেকে ছাড়া পাওয়ার পর তাদের ভয়ে পালিয়ে গিয়ে নারায়ণগঞ্জ জেলার চাষারা এলাকায় আত্মগোপন করে সে। সেখানে গিয়ে শ্রমিকের কাজ করে জীবন যাপন করছিল মুন্না।

গলাচিপা থানার অফিসার ইনচার্জ শোনিত কুমার গাইণ জানান, পুলিশের ধারাবাহিক অনুসন্ধানের একপর্যায় জানা যায় মুন্না নারায়ণগঞ্জ জেলার চাষারা এলাকায় রয়েছে। পরে কৌশল অবলম্বন করে পরিবারের সহায়তায় মামলার তদন্ত কর্মকর্তা এসআই মৃনাল চন্দ্র সিকদার অভিযান চালিয়ে মুন্নাকে উদ্ধার করে পটুয়াখালী পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে নিয়ে আসেন।

এর আগে গত (১১ মে) গলাচিপা সদর ইউনিয়ন বোয়ালিয়ায় ঘটে যাওয়া নির্যাতনের একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ফেইসবুকে ছড়িয়ে পড়লে তা মুহুর্তেই ভাইরাল হয়। ভিডিওতে দেখা যায় মুন্না (১৭) নামের এক কিশোর কে কোমড়ে লোহার শিকল দিয়ে গাছের সঙ্গে বেঁধে হযরত আলী নামে এক যুবক তাঁর দিয়ে তাকে পেটাচ্ছে। স্বজনদের অভিযোগ ৮৫ হাজার টাকা ও মোবাইল চুরির অপবাদ দিয়ে গত ৯ মে থেকে ১১ মে টানা তিনদিন তাকে দফায় দফায় মারধর করা হয়েছে। ভিডিওতে দেখা যায় মারধরের কারণে কিশোরের শরীরে রক্তাত জখম হয়েছে পা ফুলে গেছে। এসময় আশপাশের লোকজন দাড়িয়ে বিষয়টি দেখেছেন। কেউ এ ঘটনার প্রতিবাদ করেননি। ঘটনার পর থেকেই নিখোঁজ ছিলো কিশোর।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি জাগো বুলেটিনকে জানাতে ই-মেইল করুন- jagobulletinbd@gmail.com