ঢাকামঙ্গলবার , ২১ মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  1. অপরাধ
  2. আন্তর্জাতিক
  3. আবহাওয়া
  4. কর্পোরেট বুলেটিন
  5. কৃষি সংবাদ
  6. খেলাধুলা
  7. গণমাধ্যম
  8. চাকরি
  9. জাতীয়
  10. জেলা সংবাদ
  11. ঢাকা বিভাগ
  12. ধর্ম ও জীবন
  13. নাগরিক সংবাদ
  14. পদ্মাসেতু
  15. পাঁচমিশালি
আজকের সর্বশেষ সব খবর

ময়মনসিংহে প্রোটিন সোর্স খামারে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড ১০কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি

নিজস্ব সংবাদদাতা
ফেব্রুয়ারি ২৮, ২০২২ ৮:২৬ অপরাহ্ণ
Link Copied!

ময়মনসিংহ টু নেত্রকোনা মহাসড়কের পাশে তারাকান্দা উপজেলার বেলতলী এলাকায় প্রোটিন সোর্স মুরগীর খামারে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

বৃহত্তর ময়মনসিংহ এলাকায় একমাত্র অত্যাধুনিক কমার্শিয়াল লীয়ার তাপমাত্রা নিয়ন্ত্রিত মুরগী খামার গাডেক্স ইন্ডিয়ান সেডটিতে আনুমানিক ১০কোটি টাকা পরিমাণের ক্ষয়ক্ষতি পাশাপাশি শতাধিক শ্রমিকের কর্মসংস্থান বাঁধার সম্মুখীন। এছাড়াও দেশের মেধা বিকাশে পুষ্টির উৎস বন্ধের পাশাপাশি জাতীয় অর্থনীতিতে বিরূপ প্রতিক্রিয়া ঘটবে। প্রাথমিক ধারণায় ফার্মের জায়গা নিয়ে ব্যক্তিগত শত্রুতার জের ধরে হিংসাপরায়ণ হয়ে প্রতিপক্ষ নাশকতার উদ্দেশ্যে রাতের আধারে এই ন্যাক্কার জনক নাশকতা ঘটায় বলে প্রোটিন সোর্স প্রতিষ্ঠানটির স্বত্বাধিকারী কৃষিবিদ ড.সামিউল আলম লিটন জানান। ব্যাংক অর্থায়নে ঘরে তোলা খামারের এহেন ক্ষতিতে কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন স্বত্বাধিকারী।

এ সময় তিনি বলেন,খামার ধ্বংস করার চেয়ে আমার প্রাণ নাশ হলেও ভালো হতো। তিনি নাশকতায় জড়িতদের আইনের আওতায় দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেন। জানাগেছে এক সপ্তাহ পূর্বে এই সেডটিতে আক্রান্ত হয়ে কয়েকদিনের মধ্যে ৬৫ হাজার মুরগি মারা যায়। যার আনুমানিক মূল্য প্রায় ৪ কোটি টাকা। ফলে সেডটি পুরোপুরি ভাবেই বন্ধ ছিল এবং বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন ছিল বলে জানান খামারটির স্বত্বাধিকারী কৃষিবিদ ড. সামিউল আলম লিটন। সেডটির দৈর্ঘ্য ৩৯০ ফুট প্রস্হ ৪৫ ফুট সেডটিতে শতাধিক বৈদ্যুতিক চালিত মোটর, ফিডার,কেস, হেডফ্রেম, লিভ নিপল, ড্রিংগার চিরুনি, লিভ, ইকবেল, বন্ড ইয়ার, হেডফ্রেন, ইগ হেডফ্রেম ও সিসি ক্যামেরাসহ শতাধিক আইটেমের মুরগি পালন এবং এর সংশ্লিষ্ট যন্ত্রপাতি সহ স্থাপনাটি সম্পূর্ণ বশীভূত হয়ে যায়। রবিবার ২৭ ফেব্রুয়ারি দিবাগত গভীর রাতে এই অগ্নিকাণ্ডের সূচনা হয়। অগ্নিকাণ্ডের খবর পেয়ে ময়মনসিংহ থেকে অগ্নিনির্বাপক দল ঘটনাস্থলে এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। ততক্ষণে সেডটি সম্পূর্ণ বশীভূত হয়ে যায়।ময়মনসিংহ ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স স্টেশনের সিনিয়র স্টেশন অফিসার আতিকুর রহমান জানান ২টি ইউনিট এর ১৪ জন সদস্য অগ্নিনির্বাপণে কাজ করে।

তিনি আরো বলেন, আগুনের সূত্রপাত অনেক পূর্বেই হয়েছিল। সোমবার ২৮ ফেব্রুয়ারি সকাল সাড়ে ১০টায় পার্শ্ববর্তী গৌরীপুর থানার ওসি খান হালিম সিদ্দিক তার টিম নিয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। একই সময় শ্যামগঞ্জ হাইওয়ে পুলিশ এর এস আই মোঃ মনজুরুল ইলাহী ঘটনা স্থল পরিদর্শন করে। ইসলামী ব্যাংক ময়মনসিংহ প্রধান কার্যালয়ের ব্যবস্থাপক মোঃ গোলাম মোস্তফা এর নেতৃত্বে ৩ সদস্যের একটি দল আগুনে ক্ষতিগ্রস্ত সেডটি পরিদর্শন করতে দেখা যায়। এছাড়াও ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন তারাকান্দা উপজেলার ইউএনও মিজাবে রহমত, ওসি আবুল খায়ের, উপজেলা চেয়ারম্যান অ্যাড. ফজলুল হক, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি প্রদীপ কুমার চক্রবর্তী রুনু ঠাকুর, ভাইস চেয়ারম্যান নজরুল ইসলাম, সালমা আক্তার কাকলি এবং স্থানীয় ১০ নং বিশকা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শাকির আহমেদ বাবুল ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। তিনি দুঃখ প্রকাশ করেন এবং নাশকতায় জড়িতদের আইনের আওতায় দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করেন।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি জাগো বুলেটিনকে জানাতে ই-মেইল করুন- jagobulletinbd@gmail.com